Share Your Article/Video/Ads with Us

Submit Item
bangladesh national zoo

বাংলাদেশ জাতীয় চিড়িয়াখানা bangladesh national zoo

বাংলাদেশ জাতীয় চিড়িয়াখানা

বাংলাদেশ জাতীয় চিড়িয়াখানা (Bangladesh Jatio Chiriakhana) কিংবা মিরপুর চিড়িয়াখানা যে নামেই ডাকা হোক না কেন এটি দেশের প্রাচীণ এবং বড় চিড়িয়াখানা। রাজধানী ঢাকার প্রাণকেন্দ্র হতে প্রায় ১৬ কি.মি  দূরে মিরপুরের অবস্থিত। ১৯৫০ সালে হাইকোর্ট চত্বরে জীবজন্তর প্রদর্শনশালা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত হয় চিড়িয়াখানাটি ।চিড়িয়াখানাটি উদ্বোধন ও সর্বসাধনের জন্য উনকুক্ত হয় ১৯৭৪ সালের ২৩ জুন। পরবর্তীতে ১৯৭৪ সালে বর্তমান অবস্থান মিরপুর স্থানান্তরিত হয় এটি। বছরে প্রায় ৩০ লক্ষ দর্শনার্থী ঢাকা চিড়িয়াখানা পরিদর্শন করে থাকেন। ২০১৫ সালে ৫ ফেব্রুয়ারিতে নাম পরিবর্তন করে ঢাকা চিড়িয়াখানা থেকে বাংলাদেশ জাতীয় চিড়িয়াখানা নামকরণ করা হয়। 

প্রায় ৭৫ হেক্টর আয়তনের চিড়িয়াখানা চত্বরে ১৩ হেক্টর দটি লেক আছ, যেখনে প্রতিবছর শীতে অসংখ্য পরিযায়ী জলজ পাখি ভিড় জমায়। চিড়িয়াখানায় আছে ১৯১ প্রজাতির প্রায় ২১৫০ টি বিভিন্ন ধরনের জীবজন্তু।  বিভিন্ন প্রজনন কর্মসূচির আওতায় ইতিমধ্যে বাঘ, সিংহ, চিতা, নান জাতের বানর, এবং অনের প্রজাতির পাখির প্রজননে সাফল্য অর্জিত হয়েছে ঢাকা চিড়িয়াখানায়। 

প্রবেশ পথেই চোখে পড়বে বানরের খাঁচা। এখানে আছে অসংখ্য ছোট বড় বানরের সমাহার। তরে সময় নষ্ট করলে চলবে না আরো অনেক কিছু দেখার বাকি আছে। একেবারে দক্ষিণে আছে দক্ষিণ দিক্ষণ লেক, তার মাছে বাবল দ্বীপ। চিড়িয়াখানার উত্তর-দক্ষিণে রয়েছে লম্বটে এলাকাজুড়ে ঘোড়া আকৃতির ওয়াটার বাক্, জেব্রা সহ আরো কিছু প্রাণি। পাশেই কেনীয়ার এক শিংওয়ালা গণ্ডার। রয়েছেে এদেশ থেকে বিলুপ্ত নীলগাই। প্রাণি জাদুঘরে আছে ২৪০ প্রজাতির স্টাফিং করা জীব-জন্তু-পাখি।   

রয়েল বেঙ্গল টাইগারই ঢাকা চিড়িয়াখানা প্রধান আকর্ষণ। আগেই দেখা মিলবে সিংহের সাথে। সিংহের খাঁচা পেরোলেই বাঘ ও ভাল্লুকের খাঁচা। এছাড়ার রয়েছে লেক, লেকের  উপর বিশালকার পেলিক্যান পাখি। চিড়িয়াখানায় নানা রকমন দেশী বিদেশী জীব- জানোয়ার ছাড়াও রয়েছে কয়েকশ প্রজাতির পাখি। তার পাশে দেখা যায় প্রাকৃতিক পরিবেশে রয়েল বেঙ্গল টাইগার ও সিংহ। আরো আছে হরেক রকমরে পাখি, এর মধ্যে হলো ফ্লেমিংগো, রঙিন ফিজ্যান্ট, বিলুপ্তপ্রায় কুড়া, কাল শকুন, এবং শঙ্খ চিল। 

জাতীয় চিড়িয়াখানা খোলা ও বন্ধের সময় সূচি

রবিবার ছাড় সপ্তাহের অন্য দিনে চিড়িয়াখানা সকাল ৯ টা থেকে বিকাল ৫ টা 

প্রবেশ মূল্য

জনপ্রতি ৫০ টাকা ( আগে ২০ টাকা ছিল) এছাড়া প্রণী জাদুঘরে প্রতিজন ১০ টাকা, হাতি প্রমোদ আরোহন ৩০ টাকা, ঘোড়া প্রমোদ আরোহন ২০ টাকা। ২ বৎসরের বাচ্চারেদ প্রবেশে টিকেট কাটতে হবে না। 

কিভাবে যাবেন

ঢাকা শহরের যেকোন জায়গা থেকে মিরপুর ১ নং সিনেমা হল গোল চত্ত্বর থেকে যে রাস্তাটি উত্তর দিকে গিয়েছে সে রাস্তা ধরে কিছু দূর গেলে জাতীয় চিড়িয়াখানা দেখা মিলবে। এ ভাড়া মিরপুর ১০ নম্বর থেকে বাস. সিএজি অথবা সিক্সা করে যেতে পারবেন। 

Related Post

Dhakeshwari Mandir

ঢাকেশ্বরী মন্দির ঢাকা Dhakeshwari Mandir

ঢাকেশ্বরী মন্দির ঢাকেশ্বরী মন্দির বাংলাদেশের জাতীয় মন্দির হিসেবে পরিচিতি লাভ করেছে। রাজধানী ঢাকার নারায়নপুরে অবস্থিত এই মন্দিরটি। এই মন্দিরটিতে প্রতি রবিবার অনুষ্ঠান…

  • 2 months ago
  • MONIR
Up Side Down BD

আপসাইড ডাউন গ্যালারি Upside Down BD

 আপসাইড ডাউন  আপসাইড ডাউন শুননেই মনে হয় এ যেনো উল্ট রাজ্যের বসবাস, ভেতরে ডুকলেই মনে হবে এ যেন ভুতের বাড়ী,  প্রথম দেখলে…

  • 2 months ago
  • MONIR

নভোথিয়েটার ঢাকা

নভোথিয়েটার বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান নখোথিয়েটার দেশের মানুষ বিশেষ করে নতুন প্রজন্মকে বিজ্ঞানমনস্ক করে গড়ে তোলা এবং বিনোদনের মাধ্যমে মহাকাশের গ্রহ-নক্ষত্র সম্পর্কে…

  • 2 months ago
  • MONIR

Grow Up Your Business

We will promote your business with referral attractive advertisement.
  • Travelling Agency
  • Hotel and Resorts Business
  • Resturent Business
  • Online Ticket Booking

Email Us: business@ajanapath.com